শরীয়তপুরে ময়লার গন্ধে অতিষ্ঠ পথচারীরা

0
674

আবু রায়হান (বর্ষন)শরীয়তপুর প্রতিনিধি,গড়াইনিউজ২৪.কম:: শরীয়তপুর-ঢাকা মহাসড়কের শরীয়তপুর সরকারি কলেজ ও ৫৭নং ধানুকা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সংলগ্ন ডাম্পিং স্টেশনে জমাকৃত ময়লার স্তূপের পাশ দিয়ে নিয়মিত যাতায়াত পথচারী ও শিক্ষার্থীদের।ময়লার বিকট দুর্গন্ধে বিশেষ করে শিশুরা বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। শরীয়তপুর সরকারি কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র মেহেদী হাসান, গোবিন্দ দাস ও আব্দুর রহমান বলেন, পৌরসভার স্তূপকৃত ময়লার দুর্গন্ধে আমার কয়েক বন্ধু বমি করে দিয়েছে। তিনদিন ধরে ওরা কলেজে আসে না। যত দ্রুত সম্ভব ময়লাগুলো সরিয়ে ফেলা উচিত। পথচারী বেলাল আহম্মেদ, নুরুন্নাহার বেগম ও সবুজ শেখ বলেন, প্রতিদিন এই রাস্তাটি দিয়ে আমাদের যাতায়াত। স্তূপকৃত ময়লার দুর্গন্ধে পেট ফুলে যায়। ৫৭ নং ধানুকা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রনজিৎ কুমার দাস বলেন, আমার বিদ্যালয়ে ৭০০ শিক্ষার্থী। ৫০০ শিক্ষার্থী এই সড়ক দিয়ে প্রতিনিয়ত আসা যাওয়া করে। ময়লার দুর্গন্ধে অনেক শিশু বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়ে বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত থাকে।গড়াই নিউজ২৪কে দেয়া সাক্ষাৎকারে,শরীয়তপুর সদর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার আ. আজিজ শিকদার বলেন, ময়লার স্তূপের পাশেই আমার বাড়ি। ময়লার দুর্গন্ধে বাড়িতে বাস করা অসম্ভব হয়ে উঠেছে। প্রায়ই আমরা অসুস্থ হয়ে পড়ি।গড়াই নিউজ২৪কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে, শরীয়তপুর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মো. মনোয়ার হোসেন বলেন, আমার কলেজের শিক্ষক-কর্মচারী ও শিক্ষার্থীরা এই সড়ক দিয়ে যাতায়াত করেন। ময়লার দুর্গন্ধে অনেকেই শ্বাসকষ্টসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন।সম্ভব হলে ময়লার স্থানটি অন্যত্র সরিয়ে নেয়ার জন্য পৌর মেয়রের প্রতি অনুরোধ জানান তিনি। অন্যথায় কমপক্ষে সপ্তাহে একদিন ময়লাগুলো ভালোভাবে পুড়িয়ে দেয়ার কথাও জানান। ময়লার দুর্গন্ধে শ্বাসকষ্ট, ডায়রিয়া ও এলার্জিসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই এই পরিবেশটিতে পরিবর্তন প্রয়োজন।গড়াই নিউজ২৪ কে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এ বলে মন্তব্য করেন শরীয়তপুর সদর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নির্মল চন্দ্র দাস।এ বিষয়ে শরীয়তপুর পৌসভার শরীয়তপুর প্রতিনিধি সাথে আলাপ কালে, মেয়র মো. রফিকুল ইসলাম কোতোয়াল বলেন, আগে থেকেই স্থানটিতে ময়লা ফেলা হচ্ছে। আমরা ডাম্পিংয়ের জন্য একটি জায়গা খুঁজে বের করার চেষ্টা করছি। কিন্তু এখানো খুঁজে না পাওয়ায় ওখানেই ফেলছি।

একটি উত্তর ত্যাগ